CULTURE & HISTORYবাংলা

কোভিড-১৯: আমাদের ‘নিউ নরমাল’ জীবন কী রকম হবে?

‘নিউ নরমাল’ বলতে এমন একটি অবস্থা বুঝায় যা আগে কখনো কেউ চিন্তা করেনি বা দেখেনি কিন্তু এই নতুন অবস্থাই বর্তমানে স্বাভাবিক হিসেবে সবাই মেনে নিচ্ছে। উদাহরণস্বরূপ আগে কেউ সামাজিক দূরত্ব নিশ্চিত করার কথা বিশেষভাবে চিন্তা করেনি কিন্তু বর্তমানে এটি একটি স্বাভাবিক বিষয়।

‘নিউ নরমাল’ কথাটা বিভিন্ন আর্থ-সামাজিক প্রেক্ষাপটে ব্যবহৃত হয়। ২০০৭-২০০৯ মন্দা পরবর্তী অর্থনীতির নতুন অবস্থাকেও ‘নিউ নরমাল’ বলা হয়েছিল।

করোনার কারণে বৈশ্বিক পরিস্থিতি হয়তোবা আর কখনো আগের মত স্বাভাবিক হবে না। আর নতুন এই পরিস্থিতি এখন স্বাভাবিক জীবনে পরিণত হতে যাচ্ছে। 

চলমান ‘নিউ নরমাল’ জীবন  কিংবা করোনা পরবর্তী বিশ্বে ‘নিউ নরমাল’ জীবন কেমন হবে? সেই সব ভাবনাগুলোই এখানে তুলে ধরা হল। 


সামাজিক দূরত্ব রক্ষা করবে মানুষঃ সামাজিক দূরত্ব নিশ্চিত করার কথা বিশেষভাবে চিন্তা করার সময় এসে গেছে। যদিও জনসংখ্যার অতি ঘনত্বের কারণে  বাংলাদেশের মত দেশে সামাজিক দূরত্ব রক্ষা করার তত্ত্ব কার্যকরভাবে প্রয়োগ করা সম্ভব নাও হতে পারে। 

ব্যক্তিগত স্বাস্থ্য এবং সুরক্ষাঃ নিউ নরমাল জীবনে মানুষ ব্যক্তিগত স্বাস্থ্য এবং সুরক্ষার কথা সবচেয়ে বেশি প্রাধান্য দিবে। ‘পার্সোনাল হাইজিন’ এবং ‘ব্যক্তিগত সুরক্ষা’ শুদ্ধাচার পালন করার প্রবণতা বেড়ে যাবে। 

ব্যবসার মডেল পরিবর্তন হবেঃ নিউ নরমাল সময়ে ‘Bricks & Mortar’ তত্ত্বের প্রয়োগ কমে যাবে।  ‘Bricks & Clicks’ এর প্রয়োগ অধিকহারে বেড়ে যাবে। অনলাইনে কেনাকাটার হার বেড়ে যাবে।  M-commerce এবং E-commerce ব্যবসার প্রসার ঘটবে। নতুন নতুন ‘Platform Business’ গড়ে উঠবে।

চাকরি ছাটাই এবং নতুন চাকরিঃ  চলমান বৈশ্বিক মহামারির প্রভাবে বিভিন্ন দেশে চাকরি ছাটাই হয়েছে। যুক্তরাষ্ট্রে ২ কোটির বেশি লোক চাকরি হারিয়েছে  ( সুত্রঃ এখানে ক্লিক করুন ) ব্যয় কমানোর জন্য কর্মী ছাঁটাই এর হার বেড়ে যাবে।তবে নতুন কিছু কর্মসংস্থানের সুযোগও তৈরি হবে। যেমনঃ অর্ডার ডেলিভারি ম্যান, অনলাইন স্টোর ম্যানেজার ইত্যাদি।

সাপ্লাই চেইন এ পরিবর্তন আসবেঃ বৈশ্বিক সাপ্লাই চেইন ব্যবস্থাপনায় আসবে নতুনত্ব। নতুন প্রযুক্তি যেমন AI Tools, Robotics, IoT, Bio Safety Packaging ইত্যাদির ব্যবহার লক্ষণীয় হয়ে উঠবে। ব্যয় কমানোর জন্য সাপ্লাই চেইন ব্যবস্থার পুনর্বিন্যাস হতে পারে।

ভ্রমণ-পর্যটন কমে যাবেঃ আন্তঃদেশীয় ভ্রমণের হার কমে যাবে। পর্যটন শিল্পে ধ্বস নেমে আসতে পারে। নিউ নরমাল জীবনে ভ্রমণের ক্ষেত্রে স্বাস্থ্যবিধি মেনে চলার ওপর গুরুত্ব বাড়বে। 

বাসায় বসে কাজ এবং ভার্চুয়াল অফিসঃ বিভিন্ন ক্ষেত্রে ‘ওয়ার্ক ফ্রম হোম’ ব্যবস্থার ব্যাপক ব্যবহার পরিলক্ষিত হবে। ভার্চুয়াল অফিস এর জন্য নতুন নতুন প্রযুক্তির উদ্ভাবন হবে।  

খরচ কম- সঞ্চয় বেশিঃ খরচ করার প্রবণতা কমে যাবে। আয় এবং সঞ্চয়ের প্রবৃত্তি বৃদ্ধি পাবে।

প্রকল্পে ধীরগতিঃ চলমান এবং আসন্ন বিভিন্ন প্রকল্পে ধীরগতি লক্ষণীয় হবে। প্রকল্প সম্পাদনের সময় এবং খরচ বৃদ্ধি পাবে।

শিক্ষাক্ষেত্রে পরিবর্তনঃ শ্রেণীকক্ষে সামাজিক দূরত্ব রক্ষা করা এবং শ্রেণিকক্ষের সেরা বিকল্প তৈরি হবে যাতে করে শিক্ষাক্ষেত্রে বিরূপ প্রভাব না আসে।

স্বাস্থ্যক্ষেত্রে বিনিয়োগ বৃদ্ধি পাবেঃ স্বাস্থ্যক্ষেত্রে বেশি বেশি বিনিয়োগ হবে। নতুন নতুন প্রযুক্তির উদ্ভাবন হবে। অনলাইনে স্বাস্থ্যসেবা গ্রহণের প্রবণতা বৃদ্ধি পাবে। স্বাস্থ্যবীমার চাহিদা বেড়ে যাবে।

গণ-পরিবহনে আসবে নতুনত্বঃ গন-পরিবহনে চলাচল কমে যেতে পারে। গণস্বাস্থ্য বিবেচনায় নতুন নিয়মকানুনের প্রয়োগ ঘটবে। ব্যক্তিগত পরিবহন যেমনঃ বাই-সাইকেল, মোটর সাইকেল, ব্যক্তিগত ফোর হুইলার ইত্যাদির ব্যবহার বৃদ্ধি পাবে।

ব্যাংকিং-লেনদেন সেবায় পরিবর্তনঃ ব্যাংকিং সেবায় নতুন প্রযুক্তির ছোঁয়া লাগবে। ‘Digital Banking’ ‘Branch-less Banking’ ইত্যাদির ব্যাপক প্রসার ঘটবে। Virtual Banking, Less Cash Society দিকে মানুষ আকৃষ্ট হবে।

বিলাসদ্রব্যের ব্যবহারঃ  বিলাসদ্রব্যের ক্রয় এবং ব্যবহার হ্রাস পাওয়ার সম্ভাবনা রয়েছে। বিলাসদ্রব্যের শিল্পে এক্ষেত্রে বিরূপ প্রভাব পরবে।

রেস্টুরেন্ট ব্যবসায় স্বাস্থ্যবিধি ও নতুন প্রযুক্তিঃ মানুষ স্বাস্থ্যবিধির প্রতি বিশেষ গুরুত্বারোপ করবে এবং রেস্টুরেন্ট এর খাবার গ্রহণে আরো সতর্ক হবে।  নতুন এ চাহিদার সাথে ব্যবসা প্রতিষ্ঠান আরো উদ্ভাবনী চিন্তার প্রয়োগ ঘটাবে। যেমনঃ স্বাস্থ্যকর উপায়ে রান্নাবান্না, খাবার প্যাকেজিং, এবং খাবার সরবরাহ। 


 The Civil Insight এর নিজস্ব ফিচার। 

ম্যাগজিনের কোন কিছু কপিকরে অন্য কোন সাইটে পোস্ট করা আইনত দণ্ডনীয় অপরাধ। কপিকরা থেকে বিরত থাকুন। 

Related Articles

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Back to top button
Close